হায়দ্রারাবাদে চিকিৎসক দম্পতির রহস্য মৃত্যু, বাথরুমের মেঝেয় উদ্ধার দেহ

বিবিপি নিউজ: দুই চিকিৎসকের খুব একটা বয়স হয়নি। স্ত্রী ফাইনাল ইয়ারের ছাত্রী। স্বামী একটি সরকারি মেডিকেল কলেজের চিকিৎসক।

আর তাদের মৃত্যুকে ঘিরেই রহস্য দানা বাঁধছে। ঘটনাটি হায়দারাবাদের খাদেরবাগের ঘরের বাথরুমের মেঝে থেকে সাইমা এবং সৈয়দের দেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

পুলিশ জানায়, দুজনই তাদের কর্মস্থল সূর্যপেট থেকে হায়দরাবাদের বাড়িতে ফিরেছিলেন ২৪ ঘণ্টা আগে। এরপর তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করতে না পেরেই বাড়িতে ঢুকে দম্পতির দেহ উদ্ধার করে পরিবারের লোকজন।

২২ বছরের উম্মে মোহিমিন সাইমা জুনিয়র চিকিৎসক। তিনি ফাইনাল ইয়ারের ছাত্রী। তার স্বামী চিকিৎসক সৈয়দ নিসারুদ্দিনের বয়স ২৬। তিনি সরকারি মেডিকেল কলেজের চিকিৎসক। দুমাস আগে দুজনের বিয়ে হয়।

এরপর পড়াশোনা এবং কর্মসূত্রেই সূর্যপেটে থাকতেন তারা। বুধবারই সেখান থেকে বাড়ি ফেরেন। সাইমার বাবা জানান, মেয়ের সঙ্গে বুধবার কথা হয়েছিল তার। তখন সাইমা তাকে বলেছিলেন, বাড়ি ফিরে ফোন করবেন। সেই ফোন আর আসেনি।

টানা ২৪ ঘণ্টা মেয়ে-জামাইয়ের সঙ্গে যোগাযোগ করতে না পেরে বৃহস্পতিবার তাদের বাড়িতে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় সাইমার পরিবার। সেখানে গিয়েই দুজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।